ডেস্ক রিপোর্ট : করোনাকালীন সময়ে মানবিক কাজ ও সচেতনতা মূলক কার্যক্রমে অসামাণ্য অবদান রাখায় বিশিষ্ট ব‍্যবসায়ী, তরুণ উদ্যোক্তা, নাট্যকার, অভিনেতা, সিলেট ফ্রিডম ক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও প্রধান পৃষ্ঠপোষক, তালুকদার গ্রুপ অব কোম্পানির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান মো: ইমতিয়াজ কামরান তালুকদারকে ময়ূরপঙ্খীর আজীবন সদস্য নিবার্চিত করা হয়। এসময় তাকে করোনাযোদ্ধা ‘ময়ূরপঙ্খী গ্লোবাল অ‍্যাওয়ার্ড’ সংবর্ধনা ও সম্মাননা প্রদান করা হয়।

আজ সিলেট নগরীর একটি অভিজাত হোটেলে কনফারেন্স হল রুমে এ সংবর্ধনা ও সম্মাননা দেয়া হয়।

ময়ূরপঙ্খীর প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান রুহিত সুমন’র পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানানো হয়। তিনি ব্যবসায়ীক কাজে বিভিন্ন দেশে সফর করেন-পোল্যান্ড, রাশিয়া, মালয়েশিয়া, দুবাই,সৌদি আরব,থাইল্যান্ড, মায়ানমার, নেপাল, ভূটান, ইন্ডিয়া।

সমাজসেবায় তিনি সিলেট বিভাগীয় শ্রেষ্ঠ যুব সংগঠক এওয়ার্ড এবং জাতীয় পর্যায়ে শ্রেষ্ঠ তরুণ উদ্যোক্তা এওয়ার্ড প্রাপ্ত যুব সংগঠক। তার ব্যক্তিগত উদ্যোগে করোনাকালিন সময়ে সিলেট নগরীর বিভিন্ন এলাকায় হতদরিদ্র জনগোষ্ঠীর মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করছেন। ২১ শত পরিবারের মাঝে খাদ্য ও ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেন।

এছাড়াও তিনি করোনাকালীন সময়ে অসহায় মধ্যবিত্ত ও নিম্নবিত্ত, হতদরিদ্র, প্রতিবন্ধী, ইমাম-মুয়াজ্জিন, কুরআনে হাফেজ, অসচ্ছল বয়স্ক মহিলা-পুরুষ, অসচ্ছল মুক্তি যোদ্ধাদের পাশে দাঁড়িয়েছেন। সিলেট নগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে সমাজের সুবিধা বঞ্চিত মানুষের পাশে বিনামূল্যে মাস্কস্যানিটাইজার ও সাবান, খাদ্য সামগ্রী বিতরণ, নগদ অর্থ প্রদান,নিজ হাতে রান্না করে খাবার বিতরণ, সিলেটের সংস্কৃতি কমীদের পাশে দাঁড়িয়েছেন, লিফলেট বিতরণ, রমজানে উপহার সামগ্রী বিতরণ,চা শ্রমিকদের উপহার সামগ্রী বিতরণ, ইফতার বিতরণ,অসহায় মানুষের মাঝে ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ,পথশিশুদের জন্য ঈদে নতুন কাপড় বিতরণ,অসহায় চা শ্রমিকদের মাঝে ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ সহ নানা সমাজসেবা মূলক কার্যক্রম করেন।

তিনি ঐতিহ্যবাহী বিদ্যাপীঠ সিলেট এম সি কলেজে থেকে পলিটিক্যাল সায়েন্সে পোস্ট গ্রাজুয়েশন সূ-সম্পূণ করেন। এছাড়াও তিনি মঞ্চ অভিনয় আর টিভি নাটক সঙ্গে জড়িয়ে আছেন পাশাপাশি তিনি তরুণ উদ্যোক্তা ও ব্যবসায়ী।আন্তর্জাতিক ভাবে স্বীকৃতপ্রাপ্ত স্বেচ্ছাসেবী সামাজিক সংগঠন “ময়ূরপঙ্খী শিশু কিশোর সমাজকল্যাণ সংস্থা (গভ: রেজি: নং: ঢ-০৯৫৮৭)।

এসময় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সিলেট মহানগর আওয়ামীলীগের সাবেক সহ সভাপতি ও সাবেক কাউন্সিলর বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালিক।

বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন হিউম্যান রাইটস্ মনিটরিং অর্গানাইজেশন সিলেট বিভাগের সভাপতি মানবাধিকার কর্মী ও সাংবাদিক মো.আরিফুর রহমান, বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ ও সমাজসেবক মোঃ নাজমুল ইসলাম চৌধুরী, সমাজ সেবক মোঃ মুজাক্কির হোসাইন, যুব সংগঠক আলী আহসান হাবীব, আব্দুল মোমিন, মহিলা উদ্যোক্তা আসমা উল হাসনা খান, মো গোলাম কিবরিয়া, মো মিনহাজ আহমদ,আবু সুফিয়ান, সাথী খান, আব্দুল হারিস, শিপলু আহমদ মুসা, শেখ ইমতিয়াজ শিপলু, রাজন চাকলাদার, শরীফা আক্তার লিমা, তানজিনা আক্তার লিমু, সৈয়দ মুহিবুর রহমান মিসলু, মোঃ ফয়েজ, এমদাদুল ইসলাম সোহাগ, রাহিন আহমদ, আজাদ বিন আলম, রেওয়ান করিম রাহি প্রমুখ।